বিয়ের পর প্রথম ভালোবাসা দিবস দুস্থদের সঙ্গে কাটালেন মিষ্টি

প্রকাশিত: ফেব্রুয়ারি ১৬, ২০২৪; সময়: ১১:০০ পূর্বাহ্ণ |
খবর > বিনোদন
বিয়ের পর প্রথম ভালোবাসা দিবস দুস্থদের সঙ্গে কাটালেন মিষ্টি

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : সরস্বতী পূজার পাশাপাশি গত বুধবার ছিল ‘ভ্যালেন্টাইনস ডে’ও। মনের মানুষকে সঙ্গে নিয়ে ভালোবাসার উদযাপনে ব্য়স্ত তারকা থেকে আমজনতা। বিয়ের পর এটাই প্রথম প্রেম দিবস মিষ্টি আর রোমোর।

গত বছরের মে মাসে বিয়ের পর্ব সেরেছিলেন টেলিভিশনের ‘ভাদু’। রূপকথার পরণতি পেয়েছে তাদের ১৪ বছরের প্রেমের কাহিনি। একসঙ্গে অনেকগুলো ভালোবাসা দিবস উদযাপন করেছেন তারা। বিয়ের পর প্রথম ‘ভ্যালেন্টাইনস ডে’ চিরস্মরণীয় করে রাখলেন মিষ্টি।

এ দিন পথশিশু ও দুস্থ মানুষদের সঙ্গে নিয়ে হয়েছিলেন মিষ্টি। প্রতিবারই তো নিজের জন্য ভাবনা, সেই ছক থেকে বেরিয়ে এবার অন্যের জন্য কিছু করার তাগিদ জন্মায় মিষ্টির।

তিনি বলেন, আমার বাবা অনেকদিন আগেই পথশিশুদের খাওয়ানোর রীতিটা চালু করেছিলেন। সেই সময় সোশ্যাল মিডিয়ার এতো প্রচলন ছিল না বলে লাইমলাইটে আসেনি।

তাই এবার ইচ্ছে রয়েছে ভালোবাসার দিনটা ওদের সঙ্গে কাটাব। একটু খাওয়া-দাওয়ার ব্যবস্থা করেছি। প্রেম-ভালোবাসা তো শুধু কাপলদের জন্য নয়। সবার মধ্যে ভালোবাসা ছড়িয়ে দেওয়া যায়।

টেলিপাড়ার নবদম্পতি তারা। বিয়ের গন্ধ এখনও গায়ে লেগে। বিয়ের পর প্রথম ভালোবাসা দিবস বলে কথা, রোমো কী উপহার দিলেন বউকে?

মুচকি হেসে মিষ্টি বলেন, রেমো আমার জন্য ফুল, চকলেট ও পোশাকসহ অনেক উপহার এনেছে। আমি রেমোর জন্য ভ্যালেন্টাইনস ডে স্পেশাল ডেসার্ট রান্না করেছি। এছাড়া তো সরস্বতী পুজো।

বেশকিছু নিমন্ত্রণ ছিল, সেখানে গিয়েছিলাম। আজ বাইরে ডিনারের পরিকল্পনা রাখিনি, কারণ রাস্তাঘাটে প্রচণ্ড ভিড়। ভিড়টা একটু অ্যাভোয়েড করতে চেয়েছি।

পুরোটাই বাড়িতে আয়োজন করেছি। সবটা ঘরোয়া রাখতে চেয়েছি।’ নায়িকার সংযোজন, ‘রেমো খুব বেশি আউইসাইড পার্সন নয়। বাড়িতেই সুন্দর সাজিয়ে-গুছিয়ে সময় কাটাচ্ছি’।

বিয়ের পর বাংলা মিডিয়াম ধারাবাহিকে সুহানার চরিত্রে দেখা মিলেছিল মিষ্টির। সম্পূর্ণা লাহিড়ির বদলি হিসেবে দেখা মিলেছিল তার। সেই মেগা শেষ হওয়ার পর এখনো নতুন কোনো প্রোজেক্টে দেখা মেলেনি তার। মিষ্টিকে ছোটপর্দায় দেখার অপেক্ষায় ভক্তরা।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
পদ্মাটাইমস ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
topউপরে