নাটোর পাওয়ার গ্রীড উপকেন্দ্রের গাছ কাটার অভিযোগ

প্রকাশিত: মার্চ ৪, ২০২৪; সময়: ২:৪০ অপরাহ্ণ |
নাটোর পাওয়ার গ্রীড উপকেন্দ্রের গাছ কাটার অভিযোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক, নাটোর : নাটোরের পাওয়ার গ্রীড উপকেন্দ্রের ভিতরের দুটি সরকারী গাছ সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষে অনুমতি ছাড়াই কেটে ফেলার অভিযোগ পাওয়া গেছে। শহরের হরিশপুরে পাওয়ার গ্রীড উপকেন্দ্রে নিয়োজিত আনসার সদস্যরা তাদের জ্বালানির প্রয়োজনে ওই দুটি কেটেছে।

আনসার কমান্ডার মুক্তার আলী বলেন, কর্তৃপক্ষের সাথে কথা বলে তারা দুটি গাছের ডাল কেটেছেন।

কেন্দ্রের উপসহকারী প্রকৌশী বোরহান উদ্দিন কোন গাছ কাটা হয়নি দাবী করে বলেন, সরকারী ওই গাছ দুটির শুধু ডাল কাটা হয়েছে।কেন্দ্রে কর্মরত আনসার সদস্যদের জ্বালানীর প্রয়োজন মেটানোর জন্য গাছের মরা ডাল কাটা হয়েছে।

কেন্দ্র থেকেই আনসার সদস্যদের রান্নার জ্বালানীর মাসিক চাহিদা পুরন করা হয়। জ্বালানী হিসেবেই ডাল কাটা হয়। এজন্য রাজশাহীস্থ উর্ধতন কর্তৃপক্ষের মৌখিক অনুমতি নেয়া হয়েছে বলে তিনি জানান।

উপকেন্দ্রের সহকারী প্রকৌশলী মোহম্মদ হাসানুর রহমান জানান, তিনি এ বিষয়ে কিছুই জানেননা।

নাটোর বন বিভাগের কর্মকর্তা মিজানুর রহমান জানান, এই সরকারী গাছ কাটার এবিষয়ে কোন ধরনের অনুমতি নেয়া হয়নি। সরকারী কোন দপ্তরের গাছ কাটার প্রয়োজন হলে বিষয়টি বন বিভাগকে অবগত করা হয়।

বন বিভাগ জেলা প্রশাসকের সাথে মিটিং করার পর কর্তনের প্রয়োজন হওয়া গাছের মুল্য নির্ধারন করে দেয়ার পর দরপত্রের মাধ্যমে গাছ কাটা হয়।

নাটোর পাওয়ার গ্রীড উপকেন্দ্রের গাছ বা গাছের ডাল কাটার বিষয়ে বন বিভাগকে জানানো হয়নি। বিদ্যুতের ঝুঁকমুক্ত করার জন্য সড়কের ধারের গাছের ডাল কাটার জন্যও বন বিভাগের সাথে আলোচনা করে কাটা হয়। এক্ষেত্রে অবগত বা অনুমতি নেয়া হয়নি।

নাটোরের অতিরিক্ত জেলা প্রশাসক (সার্বিক) মাসুদুর রহমান জানান, বিষয়টি জেনে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ গ্রহণ করা হবে।

 

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
পদ্মাটাইমস ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
topউপরে