রেকর্ড ব্যবধানে আবারও পুতিনের নিরঙ্কুশ বিজয়

প্রকাশিত: মার্চ ১৮, ২০২৪; সময়: ১১:৩২ পূর্বাহ্ণ |
রেকর্ড ব্যবধানে আবারও পুতিনের নিরঙ্কুশ বিজয়

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : নির্বাচনে আবারও রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট হওয়ার পথে নিরঙ্কুশ বিজয় পেয়েছেন ভ্লাদিমির পুতিন। তিনদিনের প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে তিনি রেকর্ড সংখ্যক ভোট পেয়েছেন। রোববার প্রাথমিক ফলাফলের তথ্যে দেখা যায়, প্রায় ৮৮ শতাংশ ভোট পেয়েছেন তিনি।

রাশিয়ার কেন্দ্রীয় নির্বাচন কমিশন জানিয়েছে, প্রায় ৬০ শতাংশ এলাকার ভোট গণনা শেষ হয়েছে। এতে দেখা গেছে, পুতিন ৮৭. ৫ শতাংশ ভোট পেয়ে একক সংখ্যাগরিষ্ঠতা লাভ করেছেন। তার প্রতিদ্বন্দ্বীদের মধ্যে কমিউনিস্ট প্রার্থী নিকোলাই খারিটোনভ ৪ শতাংশের কম ভোট নিয়ে দ্বিতীয়, নবাগত ভ্লাদিস্লাভ দাভানকভ তৃতীয় এবং লিওনিড স্লুটস্কি চতুর্থ হয়েছেন। সোমবার ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি এ খবর জানিয়েছে।

এক প্রতিবেদনে রয়টার্স জানিয়েছে, সোভিয়েত ইউনিয়ন পরবর্তী যুগে এটি রেকর্ড। এতে করে ৭১ বছর বয়সী রাশিয়ার এই নেতার আরও ছয় বছর ক্ষমতায় থাকা পাকাপোক্ত হল। ১৯৯৯ সাল থেকে তিনি ক্ষমতায় রয়েছেন।

এবারের ভোটে তার প্রতিদ্বন্দ্বীরা পরিচিত মুখ না হওয়ায় তারা ভোটের লড়াইয়ে ভালো করতে পারবেন না তা আগে থেকেই অনুমিত ছিল। ভোটের দিন দেশটির বিভিন্ন অংশে পুতিন বিরোধী বিক্ষোভের মধ্যেও তার অন্য তিন প্রতিযোগীর কারও ভোটের হার দুই অঙ্কের কোটায় পৌঁছেনি। তারা কেউ ৪ শতাংশের বেশি ভোট পাননি।

শুক্রবার শুরু হওয়া ভোটের প্রাথমিক ফলাফল রোববার প্রকাশ করা হয়। বুথ ফেরত সমীক্ষার বরাতেও পুতিন বিপুল ভোটে বিজয়ী হবেন বলে বার্তা সংস্থা রয়টার্স জানিয়েছিল।

পরে প্রাথমিক ফলাফলে দেখা যায়, প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে ৩০ শতাংশ ভোট পড়েছে। এর মধ্যে পুতিন ৮৭ দশমিক ৮ শতাংশ ভোট পেয়ে নিরঙ্কুশভাবে বিজয়ী হন। এতে করে ২০০ বছরের মধ্যে পুতিন রাশিয়ার সবচেয়ে বেশি সময় ক্ষমতায় থাকা নেতা হতে যাচ্ছেন। এর মধ্য দিয়ে জোসেফ স্ট্যালিনকেও ছাড়িয়ে যাবেন।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসি লিখেছে, যখন রাশিয়ার রাষ্ট্রায়ত্ত টিভি প্রাথমিক ফলাফল ঘোষণা করে তখন পুতিনের বিজয় কোনো বিস্ময় হয়ে আসেনি।

রাশিয়ায় ভোট গত শুক্রবার থেকে শুরু হয়ে রোববার তিন দিন পর্যন্ত চলেছে। ভোটের শেষ দিনের পুতিনবিরোধী বিক্ষোভে ঠিক কত মানুষ উপস্থিত হয়েছিল তা ধারণা করতে পারেনি বার্তা সংস্থা রয়টার্স।

কারাগারে আলেক্সি নাভালনির রহস্যময় মৃত্যু নিয়ে সমালোচনার ঝড় এবং ইউক্রেইন যুদ্ধে রুশ সেনা নিহতের তালিকা দীর্ঘ হওয়া নিয়ে দেশের ভেতরে দানা বাঁধতে থাকা ক্ষোভের মধ্যেও নির্বাচনে প্রেসিডেন্ট পুতিনের জয় একরকম নিশ্চিতই ছিল। কারণ, নির্বাচনে পুতিনের কোনও শক্ত প্রতিদ্বন্দ্বী নেই। ফলে এ জয়ের মধ্য দিয়ে আরও ছয় বছরের জন্য সুসংহত হলো তার ক্ষমতা।

টানা দুইবারের বেশি প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে দাঁড়ানোর জন্য ২০২১ সালেই আইন পরিবর্তন করেছিলেন পুতিন। এবার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জয়ী হয়ে ২০৩০ সাল পর্যন্ত ক্ষমতায় থাকছেন তিনি।

  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
  •  
পদ্মাটাইমস ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
topউপরে