নাটোরে ছিনতাই হওয়া ফোন ও অটোরিক্সা ফিরে পেলেন প্রতিবন্ধী মুন্না

প্রকাশিত: জুন ৫, ২০২৪; সময়: ৪:০২ অপরাহ্ণ |
নাটোরে ছিনতাই হওয়া ফোন ও অটোরিক্সা ফিরে পেলেন প্রতিবন্ধী মুন্না

নিজস্ব প্রতিবেদক, নাটোর : নাটোরে পুলিশের সহায়তায় ছিনতাই হওয়া ব্যাটারি চালিত অটোরিক্সা ও স্মার্ট ফোন ফিরে পেয়েছেন প্রতিবন্ধী রিক্সা চালক মুন্না (১৮)।

বুধবার দুপুর আড়াইটার দিকে পুলিশ সুপারের কার্যালয়ে আয়োজিত প্রেস ব্রিফিং শেষে মুন্নার হাতে ছিনতাই হওয়া অটোরিক্সা ও মোবাইল ফোন তুলে দেন পুলিশ সুপার তারিকুল ইসলাম।

এই ঘটনায় জড়িত ৩ জনকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। মুন্না নলডাঙ্গা উপজেলার কাঠুয়াগাড়ী গ্রামের সাইদুল ইসলামের ছেলে।

অপরদিকে গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- নাটোর সদর উপজেলার মল্লিকহাটি এলাকার অর্জুন কুমার দাসের ছেলে অনিমেষ কুমার দাস উত্তম (৩০), বড়াইগ্রাম উপজেলার মেরীগাছা এলাকার আলীমুদ্দিন প্রামানিকের ছেলে শাহীন প্রামানিক (২৬) এবং পাবনার চাটমোহর উপজেলার ধুরইল গ্রামের রায়হান হোসেনের ছেলে রাজু হোসেন (২২)।

প্রেস ব্রিফিংয়ে পুলিশ সুপার তারিকুল ইসলাম আরও জানান, গত ১৫ মে প্রতিদিনের ন্যয় অটোরিক্সা নিয়ে ভাড়া খাটতে বের হন মুন্না। ওই দিন দুপুরে ছিনতাকারীরা ভাড়ায় মুন্নার অটোরিক্সাযোগে নাটোর রেল স্টেশন এলাকা থেকে আখেরের মোড় এলাকায় যায়।

পরে তারা সেখানে গামছা দিয়ে মুন্নার মুখ বেঁধে বেধড়ক মারপিট করে ব্যাটারিচালিত অটোরিক্সা ও একটি স্মাট মোবাইল ফোন ছিনিয়ে নিয়ে পালিয়ে যায়। মুন্না প্রতিকার চেয়ে পুলিশ সুপার বরাবর একটি লিখিত আবেদন করেন।

পরে পুলিশ সুপারের দিক নির্দেশনায় বিভিন্ন স্থানে অভিযান চালিয়ে ঘটনার সাথে জড়িত তিনজন ছিনতাইকারীকে গ্রেপ্তার ও অটোরিক্সা এবং মোবাইল ফোন উদ্ধার করা হয়।

মামলার অপর অভিযুক্ত নাটোর শহরের কান্দিভিটা এলাকার অমর ইসলামের ছেলে সূর্য ইসলাম (২৫) পলাতক রয়েছেন। তাকে গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রয়েছে বলেও জানান পুলিশ সুপার।

 

পদ্মাটাইমস ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
topউপরে