শোবিজে হেনস্থা বন্ধে আলাদা সংস্থা চান ব্রিটিশ তারকারা

প্রকাশিত: জুন ৮, ২০২৪; সময়: ১১:০৫ পূর্বাহ্ণ |
খবর > বিনোদন
শোবিজে হেনস্থা বন্ধে আলাদা সংস্থা চান ব্রিটিশ তারকারা

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : বিনোদন জগতের চাকচিক্যের আড়ালে ঢেকে যায় ঘটে যাওয়া বহু যৌন হেনস্থার খবর। হলিউড হোক বা বলিউড, এই নিয়ে আলোড়ন কম হয়নি। তাই শোবিজে যৌন হেনস্তা মোকাবেলায় আলাদা সংস্থা চেয়ে আর্থিক সাহায্যের আবেদন করেছে ব্রিটেনের একাধিক নামি অভিনেতা-অভিনেত্রী।

ব্রিটিশ সংবাদমাধ্যম বিবিসির খবর, একটি খোলা চিঠিতে সমস্ত বড় চ্যানেলের প্রযোজনা সংস্থা ‘ক্রিয়েটিভ ইন্ডাস্ট্রি ইন্ডিপেন্ডেন্ট স্ট্যান্ডার্ড অথরিটি’ এর কাছে অর্থসাহায্যের আবেদন করা হয়।

সিনেমা বা থিয়েটার জগতে হেনস্থার মত এ ধরনের অভিযোগ মোকাবেলায় এই আর্থিক সাহায্যের আবেদন করা হয়। তালিকায় রয়েছেন মিশন ইম্পসিবল সিরিজে ইলসা ফাউস্টের ভূমিকায় অভিনয় করা রেবেকা ফার্গুসন, কেইরা নাইটলি ও রুথ উইলসন।

এছাড়াও সুইসাইড স্কোয়াড খ্যাত কারা ডেলেভিংনে, ক্যারি মুলিগান, রেবেকা ফার্গুসিন, নাওমি হ্যারিস, এমেরাল্ড ফেনেল, সুজানা হোয়াইটের মত একাধিক তারকাও সেই আবেদনে সই করেছেন। বিবিসি, স্কাই, চ্যানেল ফোর এবং ভায়াকমের মত কিছু কিছু সম্প্রচারকারী সংস্থা ইতোমধ্যেই এর জন্য প্রাথমিক অর্থসাহায্য করেছে।

আবেদনে বলা হয়েছে, যৌন হেনস্থা বা অন্য নানা রকম ভাবে হেনস্থা বিনোদন জগতের একটা অঙ্গাঙ্গি অংশ হয়ে দাঁড়িয়েছে। এর মোকাবিলায় একটি বাইরের সংস্থাকে রাখা দরকার, যারা পরামর্শ দেবে, মধ্যস্থতা করবে এবং বাড়াবাড়ি কিছু হলে দায়ী ব্যক্তিদের চিহ্নিত করতে পারবে।

ফিল্মের সেট হোক বা মঞ্চ, যেখানে এরকম ঘটনা ঘটবে, দ্রুত ব্যবস্থা নিতে হবে। এমনভাবে তাকে কাজ করতে হবে, যা সারা পৃথিবীতে একটা উদাহরণ তৈরি করতে পারে।

বিনোদন জগতে যৌন হেনস্থার ঘটনাকে আজ আর কেউ ‘অস্বাভাবিক’ বলে দেখেন না। এছাড়াও মিডিয়াতে এমন হেনস্থার ঘটনা ঘটিয়েও প্রভাবশালী অপরাধীরাও ছাড় পেয়ে যাচ্ছে।

অনেক ক্ষেত্রে আইনগত সমাধান পেতেও হিমশিম খেতে হয় ভুক্তভোগীদের। তাই বিষয়টি নিয়ে নতুন করে ভাবার দরকার রয়েছে। ব্রিটিশ অভিনেত্রীদের আবেদনে সেটাই আবার গুরুত্ব পেল।

পদ্মাটাইমস ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
topউপরে