বিজিপির ১৩৪ সদস্যকে ফেরত পাঠানো হলো মিয়ানমারে

প্রকাশিত: জুন ৯, ২০২৪; সময়: ১১:০২ পূর্বাহ্ণ |
বিজিপির ১৩৪ সদস্যকে ফেরত পাঠানো হলো মিয়ানমারে

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : মিয়ানমারে চলমান সংঘাতের জেরে পালিয়ে বাংলাদেশে আশ্রয় নেয়া ১৩৪ জন বিজিপি ও সেনাসদস্যকে স্বদেশে ফেরত পাঠানো হয়েছে।

রোববার সকাল ১০টার দিকে কক্সবাজার শহরের বাঁকখালী নদীর মোহনা সংলগ্ন নুনিয়াছড়াস্থ বিআইডব্লিটিএ’র জেটি ঘাট দিয়ে কঠোর নিরাপত্তার মধ্য দিয়ে তাদেরকে ফেরত পাঠানো হয়েছে।

পরে মিয়ানমার সরকারি বাহিনীর এসব সদস্যদের টাগবোটযোগে গভীর সাগরে নিয়ে যাওয়ার পর সেখানে অবস্থানকারি মিয়ানমারের নৌবাহিনীর বড় একটি জাহাজে তুলে দেওয়া হবে।

এর আগে শনিবার সকালে মিয়ানমার নৌবাহিনীর জাহাজে করে দেশটির একটি প্রতিনিধি দল কক্সবাজার পৌঁছান। পরে দলটির সদস্যরা টেকনাফ উপজেলার হ্নীলা উচ্চ বিদ্যালয়ে যান। সেখানে পৌঁছার পর তারা মিয়ানমারের বিজিপি ও সেনা সদস্যদের যাচাই-বাছাইসহ প্রয়োজনীয় কার্যাদি সম্পন্ন করা হয়।

বিজিবি ও প্রশাসনের সংশ্লিষ্টদের সূত্র জানিয়েছে, রোববার সকাল ৭টার দিকে মিয়ানমারের বিজিপি ও সেনা সদস্যদের ৪টি বাসযোগে কক্সবাজার শহরের বিআইডব্লিউটিএ’র জেটি ঘাটে নিয়ে আসার পর তাদের ফেরত পাঠানো হয়।

সেখানে আনার পর ইমিগ্রেশন ও ডকুমেন্টেশনের কার্যাদি শুরু করা হয়। এতে স্বরাষ্ট্র মন্ত্রণালয়, বিজিবি, জেলা প্রশাসন, পুলিশ প্রশাসন, জেলা স্বাস্থ্য বিভাগ ও কোস্ট গার্ডের ঊর্ধ্বতন কর্মকর্তারা বাংলাদেশস্থ মিয়ানমারের রাষ্ট্রদূতাবাসের প্রতিনিধি দলের সদস্যরা উপস্থিত ছিলেন।

এদিকে, মিয়ানমারের কারাগারে বিভিন্ন মেয়াদে সাজা শেষে দেশে ফেরত আসা ৪৫ বাংলাদেশি নাগরিককে বহনকারি জাহাজটি এখনও সাগরে রয়েছে। দ্রুত সময়ের মধ্যে মিয়ানমারের জাহাজটি থেকে ছোট ট্রলারে তাদের কক্সবাজার শহরের নুনিয়ারছড়াস্থ বিআইডব্লিটিএ জেটি ঘাটে আনা হবে বলে জানান সংশ্লিষ্টরা।

পদ্মাটাইমস ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
topউপরে