ঈশ্বরদীর অরণকোলা পশুর হাটে দুর্ভোগ

প্রকাশিত: জুন ১১, ২০২৪; সময়: ১১:৫৯ পূর্বাহ্ণ |
ঈশ্বরদীর অরণকোলা পশুর হাটে দুর্ভোগ

নিজস্ব প্রতিবেদক, ঈশ্বরদী : অবহেলার কারণে পাবনার ঈশ্বরদী শহরের বৃহত্তম অরণকোলা পশুর হাট এখন ময়লা- আবর্জনা ও কাদার স্তূপে পরিণত হয়েছে। দখল হয়ে যাচ্ছে হাটের জায়গা। পর্যাপ্ত সুযোগ-সুবিধা না থাকায় বিভিন্ন জেলা থেকে আসা গরু ব্যবসায়ীরা দুর্ভোগ পোহাচ্ছেন।

পৌরসভা ও হাটের ইজারাদার সূত্রে জানা যায়, প্রতি সপ্তাহের মঙ্গল এখানে গরুর হাট বসে। ঢাকা, চট্টগ্রামসহ দেশের বিভিন্ন জেলার ব্যাপারীরা এই হাট থেকে গরু কিনে নেন। গত পাঁচ বছরে পৌরসভা এই হাট ইজারা দিয়ে ৫ কোটি টাকার ওপরে আয় করেছে।

ব্যবসায়ী সূত্র জানায়, হাটে এসেই গরু ব্যবসায়ীদের দুর্ভোগের মধ্যে পড়তে হয়। কারণ, হাটের কোনো উন্নয়ন হয়নি।

সরেজমিনে দেখা গেছে, এই হাটে গরু রাখার স্থানে কাদা ও ময়লা জমে আছে। হাট ইজারাদার ও গরু ব্যবসায়ীদের নিজস্ব টাকায় মাঠের ময়লা ও কাদাপানি অপসারণ করা হচ্ছে।

স্থানীয় দু-তিনজন গরু ব্যবসায়ী অভিযোগ করেন, এই হাটে তাদের জন্য কোনো সুযোগ-সুবিধা নেই। বৃষ্টির দিনে খোলা আকাশের নিচে ক্রেতা-বিক্রেতাদের ভিজতে হয়। গরু রাখার জন্য কোনো ছাউনিও নেই। তদারকি না থাকায় হাটের ভেতরে গরু রাখার কয়েকটি জায়গা স্থানীয় লোকজন দখল করে সেখানে বাঁশ, টিন ও চাটাই দিয়ে ঘর তুলে দোকান বসিয়েছেন।

এসব জায়গা দখল হয়ে যাওয়ায় হাটের ভেতর মানুষের চলাচলে অসুবিধা হচ্ছে। গরু রাখার জায়গাও কমে আসছে। হাটে বিশুদ্ধ খাওয়ার পানির ব্যবস্থা নেই, বিদ্যুতের ব্যবস্থা থাকলেও তা খুবই অপ্রতুল। হাটের কয়েকটি ইটের রাস্তা ময়লা ও মাটিতে বন্ধ হয়ে গেছে।

গরু ব্যবসায়ী স্থানীয় সামাদ আলী বলেন, পৌরসভা থেকে হাটের উন্নয়নে কাজ না করায় তারা নিজেরাই প্রতিটি গরুর বিক্রি করা টাকা থেকে ২০-৩০ টাকা সংগ্রহ করে হাটের উন্নয়নের জন্য কাজ করেন।

হাট পরিচালনা কমিটির পক্ষ থেকে আইনশৃঙ্খলা রক্ষার জন্য নিয়মিত পুলিশ টহলের ব্যবস্থা করা হলেও পৌর কর্তৃপক্ষ কোনো নিরাপত্তামূলক ব্যবস্থা নেয়নি। ফলে গরু বিক্রির টাকা নিয়ে বাড়ি ফেরার সময় তাদের আতঙ্কে থাকতে হয়।

এ ব্যাপারে ঈশ্বরদী পৌরসভার মেয়র ইছাহক আলী মালিথা বলেন, উন্নয়নের জন্য পৌরসভায় প্রয়োজনীয় অর্থ বরাদ্দ নেই। তবু হাটের ভেতরে বেশ কিছু পাকা রাস্তা করা হয়েছে।

এছাড়া ময়লা-আবর্জনা ফেলার জন্য হাটের কিছু গর্তে মাটি ফেলে ভরাট করা হয়েছে। এই হাটের উন্নয়নের জন্য ইতিমধ্যে বড় পরিকল্পনা গ্রহণ করা হয়েছে।

 

পদ্মাটাইমস ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
topউপরে