নাটোরে যুবলীগ নেতার পায়ের রগ কর্তন মামলায় গ্রেপ্তার ৩

প্রকাশিত: জুন ২৮, ২০২৪; সময়: ১০:৪০ পূর্বাহ্ণ |
নাটোরে যুবলীগ নেতার পায়ের রগ কর্তন মামলায় গ্রেপ্তার ৩

নিজস্ব প্রতিবেদক, নাটোর : নাটোরে আওয়ামী যুবলীগ নেতা হাসানুর রহমান হাসুকে কুপিয়ে আহত করার মামলায় তিন আসামীকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ।

বৃহস্পতিবার বগুড়া থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়। গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- নাটোর সদরের কান্দিভিটুয়া এলাকার হাশেম আলীর ছেলে হাবিব, বাবুল হোসেনের ছেলে আল-আমিন ও জাইদনের ছেলে আলী।

মামলার তদন্তকারী কর্মকর্তা এসআই শাহাদত হোসেন জানান, তথ্য প্রযুক্তির সহায়তায় এবং গোপন সংবাদের ভিত্তিতে পুলিশ বগুড়া জেলা শহরের সাতমাথা এলাকায় অভিযান চালায়।

এসময় মামলার অভিযুক্তরা সাতমাথা এলাকায় অবস্থান করছিল। তারা পুলিশ দেখে দৌঁড়ে পালানোর চেষ্টা করে। পুলিশ তাদের পিছু ধাওয়া করে হাবিব, আল-আমিন ও আলীকে গ্রেপ্তার করে।

উল্লেখ্য, গত ২৪ জুন সন্ধ্যা ৭টার দিকে হেমাঙ্গিনী ব্রিজ এলাকায় নাটোর পৌরসভার ৫নং ওয়ার্ড যুবলীগ সাধারন সম্পাদক হাসানুর রহমান হাসুর ওপর হামলা চালানো হয়। হামলাকারীরা হাসুকে কুপিয়ে জখম করে ফেলে রেখে যায়। পরে স্থানীয় লোকজন তাকে উদ্ধার করে হাসপাতালে নিয়ে যায়।

এ ঘটনায় যুবলীগ নেতার ভাবী মামলা দায়ের করে। গত ১৬ এপ্রিল ঠিকাদারি কাজের টাকা ভাগ বাটোয়ারাকে কেন্দ্র করে দ্বন্দ্বের জেরে আওয়ামী লীগ নেতা ওয়ার্ড কাউন্সিলর রোকনুজ্জামান হিরো ও হাসুর সমর্থকদের মধ্যে নাটোর পৌরসভা চত্বরে সংঘষেৃর ঘটনা ঘটে।

এসময় রোকনুজ্জামান হিরোর সমর্থক শিশির নামে এক যুবক নিহত হন। ওই শিশির হত্যা মামলায় হাসানুর রহমান হাসু কারাগারে আটক ছিলেন। জামিনে ছাড়া পাওয়ার পর ৪দিনের মাথায় তার ওপর হামলা চালানো হয়।

নাটোর সদর থানার অফিসার ইনচার্জ (ওসি) মিজানুর রহমান জানান, মামলায় ৮ আসামীর মধ্যে তিনজনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। অন্য আসামিদের গ্রেপ্তারে অভিযান অব্যাহত রেখেছে পুলিশ।

 

পদ্মাটাইমস ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
topউপরে