বৃষ্টিতে ফাইনাল ভেস্তে গেলে শিরোপা উঠবে কাদের হাতে?

প্রকাশিত: জুন ২৯, ২০২৪; সময়: ১১:৫৪ পূর্বাহ্ণ |
বৃষ্টিতে ফাইনাল ভেস্তে গেলে শিরোপা উঠবে কাদের হাতে?

পদ্মাটাইমস ডেস্ক : ওয়েস্ট ইন্ডিজ এবং যুক্তরাষ্ট্রে অনুষ্ঠিত হয়েছে এবারের টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ। ভৌগলিক কারণে বছরের এই সময়ে ঐ অঞ্চলে প্রচুর বৃষ্টিপাত হয়। তাই বিশ্বকাপের অনেক ম্যাচই বৃষ্টির কারণে বিঘ্নিত হয়েছে। কয়েকটি ম্যাচ তো পরিত্যক্তও হয়েছে। ফাইনাল ম্যাচেও থাকছে বৃষ্টির শঙ্কা।

চলমান টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপ প্রায় শেষের দিকে। শিরোপা নির্ধারণের জন্য বাকি কেবল একটি ম্যাচ। আগামী শনিবার (২৮ জুন) বার্বাডোজে মেগা ফাইনাল ম্যাচে মাঠে নামবে টুর্নামেন্টের দুই অপরাজিত দল ভারত এবং দক্ষিণ আফ্রিকা।

বৃষ্টির কারণে ইংল্যান্ড-ভারতের মধ্যকার দ্বিতীয় সেমিফাইনাল ম্যাচ বারবার বিঘ্নিত হয়েছে। আবহাওয়ার পূর্বাভাস বলছে, ফাইনাল ম্যাচেও দেখা যেতে পারে এই চিত্র। তবে সেই বৃষ্টিতে খেলা বিঘ্নিত হলেও পরিত্যক্ত হওয়ার সম্ভাবনা কম।

বার্বাডোজে স্থানীয় সময় সকাল ১০টায় শুরু হবে ফাইনাল ম্যাচ। আবহাওয়া বিষয়ক বিশ্বস্ত ওয়েবসাইট অ্যাকু ওয়েদারের তথ্য অনুযায়ী, এসময় আকাশ মেঘলা থাকবে। বজ্রবিদ্যুত-সহ বৃষ্টির সম্ভাবনা রয়েছে ৪৭ শতাংশ। পূর্ব দিক থেকে ৩৫ কিলোমিটার প্রতি ঘণ্টা গতিতে হাওয়া বইবে। তিন মিলিমিটার বৃষ্টি হতে পারে। আর্দ্রতা থাকবে ৭৮ শতাংশ। তাপমাত্রা থাকবে ৩১ ডিগ্রি সেলসিয়াস।

দুপুরের দিকে তাপমাত্রা এক ডিগ্রি কমবে। সেই সঙ্গে কমবে বৃষ্টির সম্ভাবনাও। তবে সন্ধ্যায় ভারী বৃষ্টি হওয়ার সম্ভাবনা আছে সেদিকে। কিন্তু বৃষ্টির কারণে বেশি বিঘ্ন না ঘটলে ম্যাচ অনেক আগেই শেষ হয়ে যাবে।

সুপার এইট আর বিশ্বকাপের দ্বিতীয় সেমিফাইনালে কোনো রিজার্ভ ডে ছিল না। তবে ফাইনালের জন্য রাখা হয়েছে এই সুবিধা। তবে ৩০ তারিখের সেই রিজার্ভ ডে’তেও আছে বৃষ্টির শঙ্কা। শেষ পর্যন্ত যদি রিজার্ভ ডেও বৃষ্টিতে ভেসে যায় তবে যৌথভাবে চ্যাম্পিয়ন হবে ভারত এবং দক্ষিণ আফ্রিকা।

ফাইনাল ম্যাচের জন্য অবশ্য পর্যাপ্ত সময় হাতে রাখা হয়েছে। বার্বাডোজে ফাইনালের নির্ধারিত দিনে বৃষ্টি হলে ম্যাচের ওভার কাটার আগে অপেক্ষা করা হবে ১৯০ মিনিট বা ৩ ঘণ্টা ১০ মিনিট। আবহাওয়ার পূর্বাভাসে বৃষ্টির শঙ্কা থাকলেও এত লম্বা বৃষ্টির সম্ভাবনা নেই। তাই আশায় বুক বাঁধতেই পারেন সমর্থকরা।

সাধারণত টি-টোয়েন্টি ম্যাচের ফলাফলের জন্য কমপক্ষে ৫ ওভার করে খেলতে হয় দুদলকে। তবে ফাইনালে কমপক্ষে দুই দলের খেলা হতে হবে ১০ ওভার করে। এই ১০ ওভার করে খেলাও যদি ফাইনালের দিন শেষ না হয়, তাহলে ম্যাচ গড়াবে রিজার্ভ ডেতে।

রিজার্ভ ডেতেও যদি খেলা না হয়, তাহলে দুই দলকে যৌথ চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা হবে। ফাইনাল ম্যাচে টাই হলে সুপার ওভার হবে। তবে আবহাওয়ার কারণে যদি সুপার ওভার না হয়, সেক্ষেত্রেও দুই দলকে যৌথ চ্যাম্পিয়ন ঘোষণা করা হবে। এক্ষেত্রে অন্য কোনো পরিসংখ্যান বিবেচনায় আনা হবে না।

আইসিসির যেকোনো বিশ্বকাপে এবারই প্রথম ফাইনালে উঠেছে দক্ষিণ আফ্রিকা। বারবার সেমিফাইনালে বিদায় নেয়া দলটি এবার দাপট দেখিয়ে ফাইনালে উঠেছে। পুরো টুর্নামেন্ট জুড়ে কোনো ম্যাচেই হারেনি তারা। প্রতিপক্ষ ভারতও কম যায় না। এবারের বিশ্বকাপে তারাও কোনো ম্যাচ হারেনি। সেমিফাইনালে গতবারের চ্যাম্পিয়ন ইংল্যান্ডকে হারিয়ে দাপটের সঙ্গে নিশ্চিত করেছে ফাইনাল। দুদলের এমন হার না মানা মানসিকতা ফাইনাল নিয়ে দর্শকদের আগ্রহ বাড়িয়ে তুলছে। এখন বৃষ্টির কারণে সেই আগ্রহ নষ্ট না হলেই হয়।

পদ্মাটাইমস ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
topউপরে