কুষ্টিয়ায় পুলিশের সঙ্গে বিএনপির নেতা-কর্মীর সংঘর্ষ, গ্রেপ্তার ৪

প্রকাশিত: জুন ২৯, ২০২৪; সময়: ৪:৩৫ অপরাহ্ণ |
কুষ্টিয়ায় পুলিশের সঙ্গে বিএনপির নেতা-কর্মীর সংঘর্ষ, গ্রেপ্তার ৪

নিজস্ব প্রতিবেদক, কুষ্টিয়া : কুষ্টিয়ায় পুলিশের সঙ্গে বিএনপির নেতা-কর্মীর সংঘর্ষের ঘটনায় পুলিশের দায়ের করা মামলায় ৪ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। শুক্রবার রাতে কুষ্টিয়া শহর থেকে তাদের গ্রেপ্তার করা হয়।

গ্রেপ্তারকৃতরা হলেন- কুষ্টিয়া জেলা বিএনপির সহ-সভাপতি কুতুব উদ্দিন(৬৫), যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক মিরাজুল ইসলাম রিন্টু (৪৫), সদর উপজেলা যুবদল কর্মী সাইদুল ইসলাম(৪০) ও ওয়ার্ড বিএনপি নেতা যুবরাজ(৪৫)।

শনিবার (২৯ জুন) দুপুরে গ্রেপ্তরকৃতদের আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। কুষ্টিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) শেখ সোহেল রানা গ্রেপ্তারের বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন।

এর আগে গত ৮ জুন বিকেলে সদর উপজেলার বটতৈল ইউনিয়নের কবুরহাট সর্দার পাড়া এলাকায় অনুমতি না নিয়ে কর্মসূচী আয়োজন করলে পুলিশের সঙ্গে বিএনপির নেতা-কর্মীদের সংঘর্ষ হয়।

সংঘর্ষের ঘটনায় পরের দিন থানার উপ পুলিশ পরিদর্শক(এস আই) সাহেব আলী বাদী হয়ে কুষ্টিয়া মডেল থানায় বিশেষ ক্ষমতা আইন ও পূর্ব পরিকল্পিতভাবে ককটেল বোমা হেফাজতে রাখার অপরাধে মামলা দায়ের করেন। মামলায় ৩৭ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত পরিচয় আসামি করা হয়েছে আরও ২৫০ ব্যক্তিকে।

কুষ্টিয়া জেলা বিএনপির যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক প্রকৌশলী জাকির হোসেন সরকার জানান, গতকাল শুক্রবার রাত সোয়া ১০টার দিকে শহরের কোর্ট ষ্টেশন এলাকা থেকে কুতুব উদ্দিন, রিন্টু ও সাইদুলকে গ্রেপ্তার করেছে পুলিশ। আর যুবরাজকে শহরের ছয় রাস্তার মোড় এলাকা থেকে গ্রেপ্তার করে। তবে এদের মধ্যে বিএনপি নেতা রিন্টু মামলার এজাহার নামীয় আসামী।

কুষ্টিয়া মডেল থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা(ওসি) শেখ সোহেল রানা জানান, পুলিশের উপর হামলার ঘটনায় দায়ের করা মামলায় বিএনপির ৪ জনকে গ্রেপ্তার করা হয়েছে। তাদেরকে আদালতের মাধ্যমে জেল হাজতে পাঠানো হয়েছে। এজাহারনামীয় আসামী বাদে বাকিদের একই মামলায় গ্রেপ্তার দেখানো হয়েছে।

 

পদ্মাটাইমস ইউটিউব চ্যানেলে সাবস্ক্রাইব করুন
topউপরে